brandbazaar globaire air conditioner

চট্টগ্রামে বাজছে বিপিএলের শানাই

চট্টগ্রামে বাজছে বিপিএলের শানাই

বিপিএলে চার-ছক্কার ধুন্ধুমার যে লড়াই ঢাকায় চলছিল তা দুদিনের বিরতিতে আগামীকাল থেকে আবারও মাঠে ফিরছে। তবে এবার ঢাকায় নয়।

চট্টগ্রামে বাজছে বিপিএলের শানাই

২১১ কিলোমিটার দূরে বন্দরনগরী চট্টগ্রামে বাজছে বিপিএলের শানাই। একদিনের বিরতি দিয়ে এখানেই পরবর্তী পাঁচদিনে হবে বিপিএলের ১০টি ম্যাচ। উদ্বোধনী দিনেই দেখা মিলবে স্বাগতিক দল চিটাগং ভাইকিংসের। প্রতিপক্ষ সিলেট সিক্সার্স।

বিপিএল চট্টগ্রামে চলে এলেও চিটাগংবাসীর মন বেশ খারাপ। কারণ ঘরের দল চিটাগং ভাইকিংস বিপিএলে যে ফ্লপ! পাশাপাশি চট্টগ্রামের স্থানীয় ক্রিকেটাররাও ভালো করতে পারছেন না। সব মিলিয়ে বিপিএলে চট্টগ্রাম বেশ আড়ালেই আছে। তবে একটি জায়গায় তারা স্বস্তি পেতেও পারে, আশার প্রদীপ জ্বালাতে পারে।

সিলেট সিক্সার্স ঘরের মাঠে চার ম্যাচ খেলে তিন জয় পেয়েছিল। স্বাগতিক দর্শকের সুবিধা কাজে লাগিয়ে মাঠের উদ্দীপ্ত পারফরম্যান্সে তারা ছিল দুর্দান্ত। সিলেট ঘরের মাঠে যে সমর্থন পেয়েছিল চিটাগং চট্টগ্রামে সেই সমর্থন পেতে যাচ্ছে। মাঠের দর্শকদের উন্মাদনা ও ক্রিকেটারদের পারফরম্যান্স ব্যাট-বলে মিলে গেলে চিটাগং ভাইকিংস বিপিএল জমিয়ে তুলতে পারে। বিপিএলকে স্বাগত জানাতে সেজেছে চট্টগ্রাম। দেশি-বিদেশি ক্রিকেটারদের ঘিরে তৈরি হয়েছে উচ্ছ্বাস। নগরীর বড় বড় মোড়গুলোতে পছন্দের ক্রিকেটারদের ব্যানার-ফেস্টুন লাগানো হয়েছে। রয়েছে ঘরের ছেলে তামিম ইকবালের পোস্টারও। কিন্তু পড়নে নেই চিটাগং ভাইকিংসের জার্সি। এবার তামিমকে দলে নিয়েছে শিরোপা প্রত্যাশী পয়েন্ট টেবিলে শীর্ষে থাকা কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স।

তামিম বাদে চট্টগ্রামের কোনো ক্রিকেটার এখন পর্যন্ত এবারের আসরে বিপিএল খেলেননি। তামিম বাদে দলও পেয়েছেন মাত্র দুজন। ইরফান শুক্কুর রয়েছেন চিটাগংয়ে, ইয়াসির আলী খুলনায়। ঘরের মাঠে তাদের সেরা একাদশে থাকার সুযোগ মিলে কিনা সেটা সময়ই বলে দিবে।

সিলেট পর্ব শেষ করে ঢাকায় বিপিএল বেশ কয়েকটি জমজমাট ও রোমাঞ্চকর ম্যাচ উপহার দিয়েছে। এবার চট্টগ্রামের পালা। সাগর পাড়ের উত্তাল সাগরের মতো করে ব্যাটসম্যানরা চার-ছক্কার বৃষ্টির নামাতে পারেন কিনা সেটাই দেখার।

Related posts

Leave a Reply